New Business Ideas In Bangla: বিনা পুঁজিতে শুরু করুন এই ৪টি ব্যবসা। মাসে ১০,০০০ টাকা ইনকাম

New Business Ideas In Bangla: দর্শক বর্তমান সময়ে জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারণে আপনি যে ব্যবসাই করতে জান কেন, আজকের সময় এই ব্যবসা কেউ না কেউ করছেই। কিন্তু, দর্শক আজকে আমি এমন ৪টি ব্যবসা সম্পর্কে আলোচনা করবো, যা অন্য কেউ ভাবতেও পারে না।

দর্শক, আপনি যদি আপনি যদি বিনা পুঁজিতে ব্যবসা করতে চান, তাহলে এই অ্যাটিকেলটি সম্পুর্ন আপনার জন্য, একটু সময় দিয়ে প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত পড়ুন। তাহলে আপনি বুঝতে পারবেন, যে আমি যে ৪টি ব্যবসা সম্পর্কে আলোচনা করছি। সেগুলো আসলেই লাভবান একটি ব্যবসা।

আমাদের দেশে যে পরিমানে জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে, তা সরকারি চাকরির আসা নেই, আর আপনি যদি সরকারি চাকরি পেয়েও যান, তাহলে আপনার কম করে ৫-১০ লাখ টাকা ঘুস দিতে হবে। যা একজন সাধারণ পরিবারের পক্ষে সম্ভব নয়।

আপনি যদি পড়াশোনা করেন, তাহলেও এই ব্যবসা গুলো করতে পারবেন। এই কাজ সবাই করতে পারবেন। একসময় আমি নিজেই এই ৪টি ব্যবসার মধ্যে একটি করেছি। কিন্তু, এখন আমি Online Money Earning করি।

দর্শক, আমি এই অ্যাটিকেলে যে ব্যবসাগুলো নিয়ে আলোচনা করবো সেগুলো শুনতে অনেক ছোটো ব্যবসা হতে পারে, কিন্তু এখানে প্রোফিট অনেক বেশি। যাই তাহলে ব্যবসা গুলো নিয়ে আলোচনা করা যাক।

Real money earning games in India 2022 without investment | সেরা ৭টি রিয়াল মানি আর্নিং অ্যাপ 2022

New Business Ideas In Bangla

বিনা পুঁজিতে শুরু করুন এই ৪টি ব্যবসা(New Business Ideas In Bangla)

  1. ডিমের ব্যবসা
  2. পল্ট্রি মুরগির মাংসের ব্যবসা
  3. মাছের ব্যবসা
  4. দেশি মুরগির ব্যবসা

ডিমের ব্যবসা(New Business Ideas In Bangla)

দর্শক আপনি ডিমের নাম শুনে ভাবছেন, যে ডিমের ব্যবসা কিভাবে করা সম্ভব। আপনি হয়তো জানেন না যে ডিমের ব্যবসা কতটা প্রোফিটেবেল ব্যবসা। আপনি গ্ৰামাঞ্চলে বাস করেন বা শহরে বাস করেন দুই জায়গায় থেকেই এই ব্যবসা করতে পারবে।

Canbebangali Official WebsiteVisit Now
Canbebangali Telegram GroupJoin Now

ডিমের ব্যবসা কিভাবে করবেন ?

আপনি যদি এই ব্যবসা শুরু করতে চান, তাহলে আপনাকে যা করতে হবে। আপনি এখানে প্রল্ট্রি মুরগির ডিমের কথা বলছি না। আমি এখানে দেশি ডিমের কথা বলছি। আপনি হয়তো জানেন না যে বাজারে দেশি ডিমের চাহিদা কতটা।আপনি প্রথমে গ্ৰামের মহিলাদের থেকে দেশি মুরগির ডিম সংগ্ৰহ করুন।

আপনি যদি গ্ৰাম থেকে দেশি মুরগির ডিম সংগ্ৰহ করেন, তাহলে আপনি প্রতি ডিম ৫-৮ টাকার মধ্যে পাবেন। কিন্তু এই ৫-৮ টাকার ডিম বাজারে আপনি ১০-১২ টাকায় বিক্রি করতে পারবেন।আপনি ভাবতে পারেন যে ৫-৮ টাকার ডিম বাজারে ১০-১২ টাকায় বিক্রি কিভাবে। আসলে শহরাঞ্চলে কেউ মুরগি পালন করে না।

কারণ তাদের আছে জায়গা নেই, আর গ্ৰামাঞ্চে জায়গার কোনো কমতি নেই। সেই কারণে গ্ৰামের মহিলারা দেশি মুরগি পালন করে।শহরাঞ্চলে দেশি মুরগির ডিমের প্রচুর চাহিদা আপনি যদি এই ব্যবসা সঠিক ভাবে করতে পারেন, তাহলে এখানে আপনি ভালো টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আপনি প্রথমে শহরে বা বাজারে একটা দোকান ঠিক করুন। এরপর, দাম ঠিক করে নিন।আপনি যে দামে ডিম কিনবেন, তার থেকে ২-৩ টাকা বেশি দাম চাইবেন। যা আপনার ইনকাম হবে। এরপর, আপনি দোকান থেকে কিছু টাকা অ্যাডভান্স নিন এবং সেই টাকা দিয়ে ডিম কিনে তাকে দিন।

এই ভাবে আপনি বিনা পুঁজিতে ব্যবসা করে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। আপনি চাইলে এই ব্যবসা করতে পারবে। এটা যে কেউ করতে পারবেন।

পল্ট্রি মুরগির মাংসের ব্যবসা (New Business Ideas In Bangla)

আমি এই পল্ট্রি মুরগির ব্যবসাতে মুরগি পালন করার কথা বলছি না। আপনি অন্যদের কাছ থেকে মুরগি কিনে কেটে বেচতে হবে। আপনি নিজেও কেটে বেচতে পারেন, অথবা অন্য কাউকে এই কাজের জন্য লাগাতে পারেন।

পল্ট্রি মুরগির মাংসের ব্যবসা কিভাবে করবেন ?

দর্শক, বর্তমান সময়ে পল্ট্রি মুরগির মাংসের চাহিদা কি পরিমানের সেটা আমরা সবাই জানি। আমি এখানে পল্ট্রি মুরগির মাংস হাঁটে বাজারে বেচার কথা মোটেও বলছি না।

আজকের সময় অনেক বড়ো বড়ো হোটেল, রেস্টুরেন্ট আছে, যেখানে প্রতিদিন প্রচুর মাংসের প্রয়োজন হয়।আপনি প্রথমে বড়ো বড়ো হোটেল বা রেস্টুরেন্টে গিয়ে তাদের সঙ্গে কথা বলুন, অন্যরা যে দামে তাদের মাংস দিচ্ছে আপনি তাদের থেকে বেশি কিছু অফার করুন।

আপনার আশেপাশে যতগুলো হোটেল, রেস্টুরেন্ট আছে, সবার কাছে গিয়ে আপনার অফার দিন। এদের মধ্যে একটা বা দুইটা হোটেল বা রেস্টুরেন্ট আপনার অফার মেনে নেয় এবং আপনার কাছ থেকে মাংস নিতে চায়। তাহলে আপনি সেখান থেকে ভালো টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আপনি প্রথমে পাইকারীতে পল্ট্রি মুরগির কিনুন। এরপর, সেই মুরগি কেঁটে পিস করে হোটেলে দিন, নিজের প্রোফিট রেখে। এই ভাবে আপনি পল্ট্রি মুরগির মাংসের ব্যবসা করে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

এখানেও আপনি বিনা পুঁজিতে ব্যবসা করতে পারবেন। আপনি যে হোটেলের সাথে ডিল করছেন, তাদের কাছ থেকে কিছু টাকা অ্যাডভান্স নিতে পারেন।

পল্ট্রি মুরগির মাংসের ব্যবসায় ইনকাম ?

আপনি প্রথমে পাইকারীতে পল্ট্রি মুরগির কিনুন, পল্ট্রি মুরগির দাম প্রতিদিন কম বেশি হতেই থাকে। বর্তমান সময়ে গোটা পল্ট্রি মুরগির দাম প্রতি কেজি ১০০-১২০ টাকা কিন্তু আপনি যখন সেটা কেঁটে পিস করে বিক্রি করবেন, তখন সেটা ১৮০-২০০ টাকা হয়ে যাবে।

এখানে আপনাকে প্রতি কেজিতে ইনকাম আসবে ২০-৩০ টাকা, তাহলে আপনি বুঝতে পারছেন। যে এই ব্যবসা যদি বড়ো পরিমানের হয়, তাহলে ভালো পরিমানের টাকা উপার্জন করতে পারবেন।

মাছের ব্যবসা (New Business Ideas In Bangla)

আপনি যদি বিনা পুঁজিতে ব্যবসা করতে চান, তাহলে আপনি মাছের ব্যবসা করতে পারবে। এখানে আপনাকে টাকা লাগাতে হবে না। কিন্তু এই ব্যবসাতে আপনাকে বুদ্বি কাজে লাগাতে হবে।

আপনাকে এই ব্যবসা করার নিজে মাছের চাষ করতে হবে না। আপনি অন্যের মাছ দিয়ে শুধু নিজের বুদ্বিকে কাজে লাগিয়ে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।মাছ বাঙ্গালীদের খুবই প্রিয় একটি খাবার। আজকের সময় মাছের চাহিদা অনেক বেশি। এখন প্রায় প্রতিদিনই হাট বাজার চলে, এবং সেখানে প্রচুর খুচরো মাছের দোকান আছে। আপনি সেই খুচরো মাছের দোকান গুলোতে মাছ বিক্রি করতে পারবেন।

আপনি মাছের আরদ থেকে পাইকারি মাছ কিনুন, এবং সেটা হাটে বা বাজারের খুচরো দোকানে বিক্রি করুন, এর পরিবর্তে কেজি প্রতি ৫-১০ টাকা প্রোফিট রাখুন, তাতে খুচরো দোকানদার দের কোনো সমস্যা হবে না আপনার কাছ থেকে মাছ নিতে।

আপনি যদি প্রতিদিন ১০০ কেজি মাছ বিক্রি করতে পারেন, তাহলে আপনি ৫ টাকা প্রোফিট হিসাবে ৫০০ টাকা ইনকাম করতে পারবেন। আপনি যদি এর থেকে বেশি মাছ বিক্রি করতে পারেন তাহলে আরো বেশি ইনকাম করতে পারবেন।

দেশি মুরগির ব্যবসা (New Business Ideas In Bangla)

আমরা যতই খাসি, পল্ট্রি খাই না কেন। দেশি মুরগির মাংসের স্বাধ একটা আলাদা অনুভুতির সৃষ্টি করে। দেশি মুরগির চাহিদা গ্ৰাম থেকে শহর সব জায়গায় প্রচুর পরিমাণে। সবাই এই দেশি মুরগি খেতে ভালোবাসেন।

আপনি যদি হাটে বাজারে যাতাযাত করে থাকেন, তাহলে আপনি নিশ্চয় জানেন যে এই জিনিসের চাহিদা কি পরিমানের। কিন্তু এটাই আপনার ব্যবসা হতে পারে।আজকের সময় অনের দেশি মুরগির ফার্ম তৈরি হয়েছে। আমি এখানে সোনোলি মুরগির কথা বলছি না।

আপনি সেই দেশি মুরগির ফার্মের মালিকের সাথে যোগাযোগ করুন এবং তার মুরগির পাইকারি দাম ঠিক করুন।আপনি প্রথমে বাজার জাচায় করে দেখবেন, যে বাজারে এর দাম কত চলছে। সেই হিসাবে দাম ঠিক করুন।

এরপর, তার কাছ থেকে মুরগি নিয়ে বিক্রি করে, তাকে টাকা দিন। এটাও একটা বিনা পুঁজির ব্যবসা কিন্তু বুদ্বি খাটিয়ে কাজ করতে হবে। আপনি যদি করতে পারেন, তাহলে এই ব্যবসায় অনেক প্রোফিট আছে।

সবশেষে,

দর্শক, আমি যে ৪টি বিনা পুঁজিতে ব্যবসা নিয়ে আলোচনা করলাম(New Business Ideas In Bangla) এরমধ্যে মাছের ব্যবসা এবং মুরগির ব্যবসা আমি নিজেই করছি। এমনকি আমি নিজেই ১০০ দেশি মুরগির পালনও করেছি। ইনকাম সব ব্যবসাতেই আছে, আপনাকে শুধু ধর্য্য ধরে থাকতে হবে।

আপনি যদি এই ৪টি ব্যবসার মধ্যে একটি করতে চান, তাহলে আপনি করতে পারেন। ব্যবসার ইনকাম নিজের কাছে। আপনি যদি এই পোস্ট সম্পর্কে কিছু জানার থাকে তাহলে নিচে কমেন্ট করে জানাতে পারেন।

গ্ৰামে করার মতো লাভজনক ব্যবসা ?

আপনি যদি গ্ৰামে বাস করেন, এবং লাভজনক কিছু ব্যবসা করতে চান তাহলে আপনি মাছের ব্যবসা করতে পারবে, পল্ট্রি ফার্ম করতে পারেন, অনলাইন শাখা বেঙ্ক খুলতে পারেন আরো অনেক কিছু করতে পারবেন।

পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে ভালো বিজনেস আইডিয়া ?

আপনি যদি পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে বিজনেস করতে চান, তাহলে আপনি Fish Farm, Got Farm, Hotel, ইত্যাদি আরো অনেক ব্যবসা করতে পারেন।

1 thought on “New Business Ideas In Bangla: বিনা পুঁজিতে শুরু করুন এই ৪টি ব্যবসা। মাসে ১০,০০০ টাকা ইনকাম”

Leave a Comment