Mobile দিয়ে Bloging করার উপায় | How to Start Bloging On Mobile | canbebangali

 

Mobile_Bloging

Free Mobile Bloging

    Mobile Bloging:

    আপনি যদি Mobile Bloging করতে চান, তাহলে কিছু সহজ উপায় আপনাকে জানতে হবে। আমরা জানি Bloging হল প্লাটফর্ম আর এখানে অ্যাটিকেল বা প্রতিবেদন লেখা হয়। আমাদের মধ্যে ‌অনেকেই আছেন, যারা লিখতে ভালোবাসি কিন্তু, এখানে পুরো বিষয়টি আলাদা। Bloging এ লেখার কিছু নিয়ম আছে। যা আজকের আমরা স্টেপ বাই স্টেপ আলোচনা করবো। আপনিও যদি Mobile Bloging করে টাকা ইনকাম করতে চান, তাহলে লাস্ট পর্যন্ত আমাদের সঙ্গে থাকুন।

    ▪️ Bloging কি ?

    প্রথমেই বলে রাখি, Bloging কথাটা Blogger থেকে এসেছে। Bloging কথাটাকে সহজ ভাষায় বলতে হলে, যেসকল User রা Blogger এর কাজ করে তখন এই কাজ করা টাকে Bloging বলা হয়। Bloging করার দুটি প্লাটফর্ম আছে, একটি Blogger এবং অপরটি হল WordPress.

    এই দুই প্লাটফর্মের কাজ হল- অ্যাটিকেল বা প্রতিবেদন লেখা কিন্তু, এই দুই প্লাটফর্মের বৈশিষ্ট্য আলাদা আলাদা। যা আমরা নীচের দিকে আলোচনা করবো।

    ▪️ Free Blogger Platform

    Blogger এটি একটি Free Bloging প্লাটফর্ম, যেখানে আপনার মন পছন্দের পোস্ট লিখে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এটি একটি ফ্রি ব্লোগিং প্লাটফর্ম (Free Bloging Platform) এখানে আপনি এক টাকা খরচ না করে শুধু নিজের ভালো ভালো অ্যাটিকেল লিখে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এটি Google এর ফ্রি Bloging প্লাটফর্ম। এখানে যদি আপনি কাজ করেন, তাহলে আপনি ফ্রি Domain এবং Hosting পেয়ে যাবেন। এছাড়া, ফ্রি Blogger Template পেয়ে যাবেন। এক কথায় একা সম্পুর্ন ফ্রি ব্লোগিং প্লাটফর্ম। এখানে আপনি ফ্রিতে ওয়েবসাইট তৈরি করতে পারবেন। এখানে আপনাকে Blogspot.com নামের Sub Domain দেওয়া হয়। যা আপনার ওয়েবসাইট এর সঙ্গে যুক্ত হয়- যেমন, www.canbebangali.blogspot.com 

    কিন্তু, এখানে আপনি Domain Name কিনতেও পারবেন। যেমন আমার টা www.canbebangali.com এটা কেনার জন্য আপনাকে কিছু টাকা খরচ করতে হবে। যা ৫০০-১০০০ টাকার মধ্যে হতে পারে। যার পরিবর্তে আপনি এক বছর বা তার বেশি সময়ের জন্য Domain Name বা www.canbebangali.com এমন একটি ওয়েবসাইট নাম পেয়ে যাবেন।

    ▪️ WordPress Platform

    WordPress এটি একটি Paid Bloging প্লাটফর্ম। এখানে আপনি আপনার পছন্দের পোস্ট লিখে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। কিন্তু এখানে আপনার কিছু টাকা খরচ করতে হয়। এটা কোনো ফ্রি পরিষেবা নয়। এখানে কাজ করার জন্য আপনাকে Domain Name এবং Hosting কিনতে হবে। WordPress এ কাজ করার জন্য এই দুটো খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এখানে খুবই তারাতারি সফল হওয়া যায়। এখানে এমন কিছু বিশেষ সুবিধা পাওয়া যায়, যা Blogger এর থাকে না। এখানে আপনি SEO Tools পেয়ে যাবেন, যা আপনাকে একটি High Ranking Article লিখতে খুবই সাহায্য করে। এছাড়া, এমন অনেক Tool পাওয়া যায়, যা আপনার ওয়েবসাইট কে Rank করতে খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এবং এখানে খুবই সহজে Google Adsense Approval পাওয়া যায়। 

    ▪️ Domain and Hosting কি ?

    🔹 Domain: এটা একটা নাম যা আপনার ওয়েবসাইটকে চিনতে সাহায্য করে। যেমন- আপনার www.canbebangali.com এটা আমার Domain

    যা আমার ওয়েবসাইটকে সবার সামনে পরিচয় করিয়ে দেয়। এটা ছাড়া একটা ওয়েবসাইট এর পরিচয় বলে কিছুই থাকে না, যেমন Google.Com, Youtube.Com, gov.in, 

    সহজ ভাষায় একটা মানুষকে চেনার জন্য তার নাম যতটা গুরুত্বপূর্ণ ঠিক একই ভাবে একটা ওয়েবসাইট এর জন্য Domain Name ততটাই গুরুত্বপূর্ণ। 

    🔹 Hosting: Hosting এক ধরনের স্টোরেজ বা মেমোরি কার্ড। এটা Free Blogger এর জন্য প্রয়োজন হয়না, কিন্তু WordPress এর জন্য এর ভূমিকা অপরিসীম। আপনি WordPress এর মধ্যে যত পোস্ট করবেন বা WordPress এরমধ্যে যা কিছু করবেন সব কিছু Hosting এর মধ্যে জমা থাকে। আপনি যদি আপনার ওয়েবসাইট WordPress এ করতে চান তাহলে আপনাকে এটা কিনতে হবে। 

    ▪️ Bloging থেকে টাকা ইনকাম

    আপনি যদি Bloging থেকে টাকা ইনকাম করতে চান তাহলে আপনাকে Free Blogger বা WordPress এই দুই প্লাটফর্মের মধ্যে একটি বেছে নিতে হবে। এখন আপনার যেকোনো নির্দিষ্ট একটি বিষয় নিয়ে অ্যাটিকেল লিখতে হবে। আপনি প্রতিদিন একটা বা দুইটা অ্যাটিকেল পোস্ট করতে পারেন। এইভাবে আপনি পোস্ট করার পর আপনি Google Adsense Approval নেওয়ার জন্য আপনার ওয়েবসাইট কে পাঠিয়ে দিতে হবে। এরপর Google Adsense Approval হয়ে, গেলে আপনার ওয়েবসাইট এ Ads Run করবে এবং এখান থেকেই আপনি টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এছাড়াও, আপনি Affiliate Marketing, Sponser-Ship, Product Selling ইত্যাদি করেও টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

    ▪️ Bloging Best Catagory 2022

    Bloging Best Catagory বলতে তেমন বিশেষ কোনো কিছুই নেই। আজকের দিনে আপনি যেকোনো Catagory বা বিষয় সার্চ করুন না কেন, অশংখ্য ওয়েবসাইট দেখতে পাবেন। কিন্তু, এর মধ্যে কিছু এমন Bloging Catagory আছে, যা সবসময় Best Catagory লিস্টে থাকে, যেমন- Movie Related Website, Animals Website, Technology Website, Business Website, এছাড়াও আরো অনেক। কিন্তু, এখানে একটা বিষয় মনে রাখা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এখানে আপনি শুধু Bloging Best Catagory বাছাই করলে হবে না, আপনাকে এই সব Catagory সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে হবে। শুধু শখের বশে বা অন্যের কথায় কাজ শুরু করে কোনো লাভ নেই, যদি আপনার এই বিষয় সম্পর্কে ধারণা না থাকে। এর থেকে আপনি নিজের যা ভালো লাগে সেটা নিয়ে কাজ করুন। 

    এখানে সবথেকে বড়ো বিষয় হলো, আপনাকে জানতে হবে। যে অন্য ওয়েবসাইট গুলো কিভাবে পোস্ট লিখছে ।

    ▪️ Mobile দিয়ে Bloging

    আপনি যদি Mobile দিয়ে Bloging করতে চান তাহলে কোনো সমস্যা নেই। আমি নিজেই মোবাইল দিয়ে ব্লোগ পোস্ট লিখে শেয়ার করি। এখন মোবাইল দিয়ে প্রায় সব কাজ করা সম্ভব, শুধু সঠিক তথ্যের প্রয়োজন। মোবাইল দিয়ে ব্লোগিং করার জন্য আপনার একটা মোবাইল এবং ইন্টারনেট কানেকশান প্রয়োজন আর কিছু লাগবে না। অতেব, আপনি যদি ভাবছেন যে দামি মোবাইল বা কম্পিউটার ছাড়া ব্লোগিং সম্ভব নয়, তাহলে এটা আপনার জন্য নয়।

    ▪️ Bloging এ কত পোস্ট লিখতে হয় ?

    Bloging এ পোস্ট লেখার কোনো সীমা নেই, কিন্তু আমরা এখানে Bloging করে টাকা উপার্জন করতে চায়, সেই কারনে আমাদের ওয়েবসাইট কে Google Adsense Approval নিতে হবে। এই নেওয়ার আপনাকে কম করে ৫০+ পোস্ট লিখতে হবে। আপনি যদি আরো বেশি পোস্ট লিখেন তাহলে আপনার Adsense Approval নেওয়ায় খুবই সাহায্য করে। 

    ▪️ Bloging পোস্ট কত বড়ো লিখতে হয় ?

    Bloging Post Length বলতে, আপনি যে বিষয় নিয়ে আলোচনা বা অ্যাটিকেল লিখছেন এই বিষয় সম্পর্কে শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত আলোচনা করুন। এর জন্য আপনাকে পোস্ট এর সাইজ দেখতে হবে না। কিন্তু, আপনি এখানে এমন কিছু পোস্ট লিখবেন যার লম্বায় কম করে ৩০০ Word হয়। এছাড়া, আপনি যদি ৫০০-১০০০ word এর অ্যাটিকেল লিখতে পারেন তাহলে আপনি খুবই অল্প পোস্টে Adsense Approval পেয়ে যাবেন। অর্থাত, আপনাকে ৫০০-১০০০ word এর মধ্যে বা এর বেশি word এর পোস্ট লিখতে হবে। এখানে word বলতে একটা অক্ষর নয়, একটা পুরো শব্দ যেমন- রাম।

    ▪️ Blogger Or WordPress কোনটা ভালো ?

    এখানে পুরো বিষয়টা নির্ভর করে আপনার অভিজ্ঞতা আর আপনার টাকার উপর। আপনি যদি প্রথম Bloging করতে চাচ্ছেন, তাহলে আপনি Blogger বেছে নিন। কারন এখানে আপনাকে এক টাকাও খরচ করতে হবে না। এখানে আপনি Free Domain Name এবং Free Hosting পেয়ে যাবেন।যা একজন নতুন User কে বিশেষ সাহায্য করে। এক কথায় আপনি যদি নতুন ব্লোগিং শুরু করে চাচ্ছেন, তাহলে Blogger Platform বেছে নিন। কারন, হয়তো কিছু পোস্ট লিখার পর আর Bloging ভালো না লাগলে কোনো লস হবে না।

    কিন্তু, যদি আপনি WordPress Website এ কাজ শুরু করেন, তাহলে আপনাকে প্রথমে Domain Name এবং Hosting কিনতে হবে। যার মূল্য আজকের সময় প্রায় ৩০০০-৪০০০ টাকা কম করে। যা পরিবর্তে আপনি ৬ মাস বা এক বছর এর সুবিধা নিতে পারবেন। কিন্তু, যদি আপনি কোনো কারনে ব্লোগিং ছেড়ে দেন বা ভালো লাগে তখন আপনার ৩০০০-৪০০০ টাকা লস হয়ে যাবে। আর যদি আপনি Bloging নিয়ে সিরিয়ার হন, তাহলে একটু ইনভেস্ট করে WordPress এর সঙ্গে যুক্ত হন, কারন এখানে অনেক সুবিধা পাওয়া যায়। যা আপনার ওয়েবসাইট কে খুবই তারাতারি Rank করতে সাহায্য করে। 

    FaQ.

    1. Best Bloging Platform 2022 ?

    Ans: যদি Best Bloging Platform 2022  নিয়ে আলোচনা করি, তাহলে WordPress is best platform কারন, অনেক SEO Tools এখানে পাওয়ায়, কিন্তু WordPress ব্যবহার করার জন্য আপনাকে টাকা খরচ করতে হয়। আর যদি আপনি ফ্রিতে ব্লোগিং করতে চান তাহলে Blogger is best. 

    2. How to start a blog with a mobile phone ?

    Ans: বন্ধুরা, আপনার যদি ব্লোগিং করতে চান, একেবারেই শুরু থেকে প্রথম ব্লোগিং করবেন, তাহলে মোবাইল আপনার জন্য বেস্ট। মোবাইল দিয়ে ব্লোগিং করার জন্য শুধু ইন্টারনেট কানেকশান এবং টাইপিং জানতে হবে। তাহলেই আপনি মোবাইল দিয়ে ব্লোগিং করতে পারবেন।
    Post By– Santosh Barman (www.canbebangali.com)

    0 thoughts on “Mobile দিয়ে Bloging করার উপায় | How to Start Bloging On Mobile | canbebangali”

    Leave a Comment